ধামরাইয়ে অবৈধভাবে গাজীখালী নদীর বালু চুরির মামলায় গ্রেফতার ১

ধামরাইয়ে অবৈধভাবে গাজীখালী নদীর বালু চুরির মামলায় গ্রেফতার ১

ইমরান খান, ধামরাই (ঢাকা): ঢাকার ধামরাইয়ের গাঙ্গুটিয়া ইউনিয়নে গাজীখালী নদীতে অবৈধ ভাবে ড্রাম ড্রেজার বসিয়ে বালু চুরির মামলায় শামীম হোসেন নামে একজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। একই মামলায় গত সোমবার (৭ সেপ্টেম্বর) শরিফ নামে আরেক আসামিকে পুলিশ গ্রেফতার করে।

বুধবার (৯ সেপ্টেম্বর) রাতে উপজেলার গাঙ্গুটিয়া বাজার থেকে বালু চুরি মামলার আসামি শামীমকে গ্রেফতার করা হয়।

এর আগে গত ৪ এপ্রিল কাওয়ালীপাড়া গ্রামের গাজীখালী নদী থেকে বালু চুরির অভিযোগে ধামরাই থানায় বাদী হয়ে পাঁচ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাতনামা ৮-১০জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন কুশুরা ইউনিয়ন ভূমি অফিসের উপসহকারী কর্মকর্তা ইসহাক ভূইয়া।

গ্রেফতারকৃত আসামিরা হলেন, ধামরাই উপজেলার কাওয়ালীপাড়া গ্রামের আলতাফ হোসেনের ছেলে শামীম হোসেন (৩৫) এবং পাবরাইল গ্রামের আব্দুল মজিদের ছেলে শরীফ হোসেন (৩০)।

পুলিশ জানায়, গাজীখালী ব্রীজের নিচে নদীতে অবৈধ ভাবে ড্রেজার বসিয়ে বালু উত্তোলনের অভিযোগে কুশুরা ভূমি অফিসের পক্ষ থেকে ৩ লাখ টাকার বালু চুরির মামলা দায়ের করা হয়। এঘটনায় গত ৭ সেপ্টেম্বর কাওয়ালীপাড়া বাজার থেকে শরীফ নামে এক আসামিকে গ্রেফতার করে পুলিশ। পরে বুধবার রাতে গাঙ্গুটিয়া বাজার এলাকা থেকে একই মামলার আরেক আসামি শামীমকে গ্রেপ্তার করা হয়।

ধামরাই থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আরাফাত হোসেন জানান, কাওয়ালীপাড়া গ্রামে গাজীখালী নদীতে ড্রেজার বসিয়ে বালু চুরির মামলায় আজ শামীমকে গ্রেফতার করা হয়েছে। একই মামলায় এ নিয়ে দুই জন আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বাকী আসামিদেরও গ্রেফতারে অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে বলে জানান তিনি।

বিআলো/ইসরাত