ফরিদপুরে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৭, আহত ১৩

ফরিদপুরে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৭, আহত ১৩

 

সেতু আক্তার, ফরিদপুর জেলা প্রতিনিধি: ফরিদপুরের মধুখালীতে ট্রাক মাইক্রোবাসের মুখোমুখী সংঘর্ষে ৫জন ও ভাংগায় ২জন মোট ৭জন নিহত হয়েছেন এঘটনায় আহত হয়েছেন ১৩জন। আহত সকলকে ফরিদপুর সদর জেনারেল হাসপাতাল ও মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আহত সকলের অবস্থা আশংকাজনক। মাঝকান্দী দুর্ঘটনায় আহত ও নিহত সকলেই মাইক্রোবাসের যাত্রী এর মধ্যে নিহত একজনের পরিচয় পাওয়া গেছে। তিনি হলেন, ঝিনাইদাহ জেলা আইনজীবি সমিতির সহ সাধারন সম্পাদক এ্যাড. মোঃ আব্বাসউদ্দিন।

আজ সকাল ৭টার দিকে ফরিদপুরের মধুখালী উপজেলার মাঝকান্দী মহাসড়কে এবং ভাংগা বিশ্বরোডে এদুর্ঘটনা ঘটে। পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ঝিনাইদাহের মহেশখালী উপজেলা থেকে ছেড়ে আসা ঢাকা গামী একটি মাইক্রোবাস দ্রুতগতিতে এসে বিপরীত দিক থেকে আসা একটি ট্রাকের মুখোমুখী সংঘর্ষ ঘটলে এদুর্ঘটনা ঘটে। এতে ঘটনাস্থলে মাইক্রোবাসের ২ যাত্রী ও হাসপাতালে নেওয়ার পথে আরো ৩জন মারা যায়।

অপরদিকে ফরিদপুরের ভাঙ্গা বিশ্বরোডে মোটরসাইকেল-মাইক্রোবাস মুখোমুখি সংঘর্ষে দুই শিক্ষার্থী নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছে আরো একজন। আজ ভোর রাতে ভাঙ্গা বিশ্বরোডে এই ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন শফিকুল খানের পুত্র সাকিল খান(২২)। সে ঢাকার সরকারী তিতুমীর কলেজের বিবিএ ৩য় বর্ষের ছাত্র। অপর নিহত ও আহত দুজনের পরিচয় এখনো পাওয়া যায়নি।

ভাঙ্গা হাইওয়ে থানা পুলিশ জানান, রবিবার ভোরে সাকিল তার দুই বন্ধু মোটরসাইকেল নিয়ে শিবচর থেকে ভাঙ্গার উদ্দেশ্যে রওয়ানা দেয়। তাদের মোটরসাইকেলটি ভাঙ্গা বিশ্বরোডে আসলে মোটরসাইকেল এর সাথে মাইক্রোবাসের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই মটরসাইকেলে থাকা দুই শিক্ষার্থী মারা যায়। আহত অপরজনকে উদ্ধার করে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে  ভর্তি করা হয়েছে।

বিআলো/শিলি